1. mahbubur2527@gmail.com : Mahbubur Rahman Sohel : Mahbubur Rahman Sohel
  2. saidur.yc@gmail.com : SAIDUR RAHMAN : SAIDUR RAHMAN
  3. jannatulakhi1123@gmail.com : Jannatul akhi Akhi : Jannatul akhi Akhi
  4. msibd24@gmail.com : Saiydul Islam : Saiydul Islam
  5. Mofazzalhossain8@gmail.com : Mofazzal Hossain : Mofazzal Hossain
  6. saidur.yc@hotmail.com : Saidur Rahman : SAIDUR RAHMAN
  7. jim42087070@gmail.com : Lokman Hossain : Lokman Hossain
  8. galib.ip2@gmail.com : Al Galib : Al Galib
  9. sikhanphd3@gmail.com : Shafiqul Islam : Shafiqul Islam
তালায় এক মাসেও উদ্ধার হয়নি অপহৃত নববধূ ঋতুপর্ণা দাস। - Shadhin Bangla 16
আজ ২১শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ সময় বিকাল ৪:৩৯
শিরোনাম
গলাচিপায় গৃহবধুকে মারধর করলেন ভাশুর গলাচিপা পৌরবাসীকে শারদীয় দুর্গাপূজার শুভেচ্ছা জানালেন যুবলীগ নেতা নির্বাচন কমিশন আওয়ামী লীগের অঙ্গ সংগঠনে পরিণত হয়েছে -মির্জা ফখরুল বাগেরহাটের শরণখোলায় উপনির্বাচনে আওয়ামীলীগ প্রার্থী শান্ত জয়ী। মৌলভীবাজারে অভিভাবক সমাবেশ অনুষ্ঠিত গলাচিপায় ক্ষেতের পোকা-মাকড় দমনে আলোক ফাঁদ নির্বাচন কমিশন আওয়ামী লীগের অঙ্গ সংগঠনে পরিণত হয়েছে – ফখরুল রাণীশংকৈলে শালবন রক্ষার্থে বাংলাদেশ জাতীয় মানবাধিকার সমিতির মানববন্ধন ! মাল্টা চাষ করে সফল শরীফ!! বাগানে গাছে থোকায় থোকায় রসালো ও মিষ্টি সবুজ মাল্টা পাবনার আটঘড়িয়া মাজপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান সাময়িক বরখাস্ত

তালায় এক মাসেও উদ্ধার হয়নি অপহৃত নববধূ ঋতুপর্ণা দাস।

মোঃ রোকনুজ্জামান টিপু, তালা *(সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি
  • আপডেটের সময় : শনিবার, সেপ্টেম্বর ৫, ২০২০,
  • 74 দেখুন
Tala Picture Rithuporna Uzzal 05.09.20 তালায় এক মাসেও উদ্ধার হয়নি অপহৃত নববধূ ঋতুপর্ণা দাস।

সাতক্ষীরা তালায় বে-সরকারী সংস্থা পরিত্রাণ-এর এক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে বিয়ের তিন দিনের মাথায় ঋতুপর্ণা দাস (১৯) নামের এক নববধূকে অপহরণের অভিযোগ উঠেছে। গত ৯ আগস্ট সকালে তালার পাটকেলঘাটা থানার পুটিয়াখালি গ্রামে এ অপহরণের ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনার প্রায় এক মাস অতিবাহিত হতে চললেও গৃহবধূ ঋতুপর্ণাকে এখনও উদ্ধার করতে পারেনি থানা পুলিশ। দীর্ঘ সময়েও ঋতুপর্ণা দাসের কোন খোজঁ না পেয়ে হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন ওই গৃহবধূর স্বজনরা। এদিকে মামলার আসামীদের হুমকিতে চরম আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছে ওই গৃহবধূর পরিবারের সদস্যরা।

স্থানীয় ও মামলা সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিনের সম্পর্কের জের ধরে গত ৫ আগস্ট তালা উপজেলার খলিলনগর ইউনিয়নের হরিশচন্দ্রকাটি গ্রামের লক্ষণ দাসের ছেলে লিটন দাস ও পাশ্ববর্তী যশোর জেলার কেশবপুর উপজেলার বড়েঙ্গা এলাকার ভদ্রদাসের মেয়ে ঋতুপর্ণা দাস বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়।

তবে ঋতুপর্ণার সহোদর এই বিয়ের বিরোধিতা করে আসছিলেন। এক পর্যায়ে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার পরে লিটন তার স্ত্রী ঋতুপর্ণা দাসকে নিয়ে গত ৮ আগস্ট সকালে তার ভগ্নীপতি তালার পুটিয়াখালি গ্রামের গোপাল দাসের বাড়িতে বেড়াতে যায়। সেখানে তার স্ত্রীকে রেখে বিকালে চাকুরীর সুবাদে বাগেরহাটে কর্মস্থলে চলে যায়।

৯ আগস্ট সকালে বে-সরকারী সংস্থা পরিত্রাণ-এর প্রোগ্রাম অফিসার উজ্জ্বল দাস ও পাশ্ববর্তী বড়েঙ্গা গ্রামের ভদ্র দাসের ছেলে ননী গোপাল দাসের নেতৃত্বে সঞ্জয় দাস,সংকর দাস, তালার গোনালী এলাকার শশীবর দাস, পুটিয়াখালি এলাকার প্রবীর দাস, চন্দ্র শেখর দাস,উদয় দাস, সুজিত দাস গৃহবধূ ঋতুপর্ণাকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।

এ সময় ঋতুপর্ণা স্বামীকে রেখে তাদের সাথে যেতে রাজি না হওয়ায় পরিত্রাণ কর্মকর্তা উজ্জ্বল দাসের সন্ত্রাসী বাহিনীরা গৃহবধূ ঋতুপর্ণাকে মারধর করতে থাকে। একপর্যায়ে অচেতন হয়ে পড়লে তারা ঋতুপর্ণাকে নিয়ে চলে যায় পাশাপাশি লিটন দাসের ভগ্নিপতির বাসা থেকে স্বর্ণের দুল, রুলি, চেইনসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে যায়।

এ সময় স্থানীয়রা  তাদের এসব কর্মকান্ডের বাধাঁ দিতে গেলে স্থানীয়দেরও প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়। এ ঘটনায় লিটন দাস বাদী হয়ে গৃহবধূর নিজ এলাকা যশোরের কেশবপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ ও পাটকেলঘাটা থানাতে একটি সাধারণ ডায়েরী (যার নং-৩৮০) করেন।

সর্বশেষ গত ১৫ আগস্ট সাতক্ষীরা জেলা বিজ্ঞ ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ফৌজদারী কার্যবিধি ১০০ ধারায় একটি মামলা দায়ের করেন লিটন দাস। মামলা দায়েরের পর থেকে এনজিও পরিত্রাণের প্রোগ্রাম কর্মকর্তা উজ্জ্বল দাসসহ তার বাহিনী লিটন দাসকে মামলা তুলে নিতে হুমকি ধামকি অব্যাহত রেখেছে।

এ বিষয়ে লিটন দাস বলেন, জোরপূর্বক আমার স্ত্রীকে অপহরণ করে নিয়ে চলে গেছে পরিত্রাণ কর্মকর্তা উজ্জ্বল দাসসহ তার সন্ত্রাসী বাহিনী। এ কারণে আমি আমার স্ত্রীকে ফিরে পেতে সরকারের বিভিন্ন দফতরে লিখিতভাবে অভিযোগ ও মামলা দায়ের করেছি।

তবে অভিযোগ ও মামলা তুলে নিতে প্রতিনিয়ত উজ্জ্বল দাস ও তার সন্ত্রাসীবাহিনী আমাকে মুঠোফোনে হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। আমি যদি মামলা তুলে না নেয় তাহলে তারা আমার স্ত্রীকে মেরে ফেলা ও আমার পরিবারের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে দিবে বলে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। এ সময় তিনি নিজের বিবাহিতা স্ত্রী ফেরত ও দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রশাসনের উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

এ বিষয়ে পরিত্রাণ কর্মকর্তা উজ্জ্বল দাস তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, তিনি ষড়যন্ত্রের শিকার। তবে পরিত্রাণ পরিচালক মিলন দাস বলেন, অভিযুক্ত উজ্জ্বল দাস যদি পরিত্রাণ এনজিও’র নাম ও পদবী ব্যবহার করে এ ঘটনাটি ঘটায় এবং তার এসমস্ত কর্মকান্ড ঘটানোর বিষয়ে কেউ যদি লিখিতভাবে অভিযোগ করে তাহলে উজ্জ্বল দাসের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ বিষয়ে পাটকেলঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী ওয়াহিদ মুর্শেদ বলেন, বিষয়টি এখনও তদন্তাধীন আছে। দ্রুত দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে তিনি জানান।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর

https://shadhinbangla16.com © All rights reserved © 2020

theme develop by shadhinbangla16.com
themesbazarshadinb16
bn Bengali
X